রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১০:২৪ পূর্বাহ্ন

(বারী উদ্দিন আহমেদ বাবর, নাঙ্গলকোট)
কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার নাঙ্গলকোট-ঢালুয়া সড়কের বালু মার্কেট এলাকায় আলম স’মিলের অবৈধ সংযোগের ছেঁড়া বৈদ্যুতিক তারে জড়িয়ে এক প্রবাসী যুবকের মৃত্যু হয়েছে। নিহত যুবকের নাম মো. আলাউদ্দিন (৩৫)। নাদেশ^র গ্রামের আবুল কালামের ছেলে ও বাহরাইন প্রবাসী। গতকাল মঙ্গলবার বিকেল ৫টার দিকে এ ঘটনা ঘটেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, নিহত আলাউদ্দিন প্রায় পনের দিন আগে বাহরাইন থেকে ছুটিতে দেশে ফিরে আসে। এরপর গতকাল বিকেল ৪টার দিকে বৃষ্টি হলে সে তার ছেলে আবিরকে সাথে নিয়ে বালু মার্কেট এলাকায় মাছ ধরতে যায়। সেখানে আলমের স’মিলের পিছনে জাল ফেলতে গেলে স’মিলের অবৈধ সংযোগের ছেঁড়া তারে জড়িয়ে যায়।

এসময় তার সাথে তার ছেলে আবির (৬) বিদ্যুতায়িত হয়ে আহত হয়। পরে সড়কে চলাচলকারী এক রিক্সাচালকের শোর চিৎকারে আশেপাশের লোকজন জড়ো হয়ে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নেয়ার সময় আলাউদ্দিন মারা যায়। স্থানীয়রা তার ছেলেকে নাঙ্গলকোট পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন। বর্তমানে সে সুস্থ্য রয়েছে। আলাউদ্দিনের অকাল মৃত্যুতে তার পরিবারসহ ওই গ্রামে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

এ ব্যাপারে অবৈধ সংযোগের তারে জড়িয়ে যুবকের মৃত্যুর বিষয়ে জানতে চাইলে স’মিলের মালিক আলম জানান, আমার বৈদ্যুতিক মিটার আছে, আমি কোন ধরনের অবৈধ সংযোগ ব্যবহার করি না। মৃত্যুর বিষয়ে তিনি বলেন, কিভাবে তার মৃত্যু হলো তা আমিও জানি না।

রাস্তায় চলাচলকারী লোকজনের চিৎকার শুনে আমিসহ কয়েকজনে গিয়ে দেখি তারা বাপ-ছেলে পড়ে রয়েছে। আলাউদ্দিন মারা গেছে নিশ্চিত হয়ে আমি খুব দ্রুত তার ছেলেকে পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে নেই। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসার পর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে এবং বর্তমানে সে সুস্থ্য রয়েছে।
এ বিষয়ে নাঙ্গলকোট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আইয়ুব বলেন, বিদ্যুতায়িত হয়ে এক যুবকের মৃত্যুর খবর শুনেছি। তবে বিস্তারিত এখনো জানতে পারিনি।

আরও পড়ুন

%d bloggers like this: