শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ১১:৫২ অপরাহ্ন

কামরুল হাসান বিজয়, চকবাজার থেকে ।।
কুমিল্লার নগরীর চকবাজার তেরেপট্টিতে কয়েকটি দোকানে ভয়াবহ অঘ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। শনিবার দুপুরে  বাঁশ বাজারের দক্ষিণ পাশে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুনের তীব্রতা বেশি হওয়ার কারণে নিয়ন্ত্রণে আনতে বেগ পেতে হচ্ছে ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের।

স্থানীয়রা ও আগুন নেভানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। দুপুর ২ টা ৩০ মিনিটে এর রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আগুন এখনও জ্বলছে। ফায়ার সার্ভিসের কয়েকটি ইউনিট আগুন নেভানোর কাজ করছে। এখনও কোন হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

স্থানীয়রা জানান, বাঁশ বাজারের পাশে একটি ভবনে আগুনের সূত্রপাত হয় । এতে প্রায় ২০ টি দোকান ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে । প্রচন্ড ধোঁয়ার কারণে আগুন সহজে নিভানো যাচ্ছে না।

কুমিল্লা ফায়ার সার্ভিসের এক কর্মকতা জানান, আমরা আগুন নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। আশা অতি দ্রুত নিয়ন্ত্রনে চলে আসবে।

ভিডিও:

 

আগুনের তীব্রতা বেশি হওয়ার কারণে নিয়ন্ত্রণে আনতে বেগ পেতে হচ্ছে ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের। স্থানীয়রা আগুন নেভানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। দুপুর ২ টা ২০ মিনিটে এর রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত আগুন এখনও জ্বলছে।

স্থানীয়রার জানান, বাঁশ বাজারের পাশে একটি ভবনে আগুনের সূত্রপাত হয় । এতে প্রায় ২০ টি দোকান ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে । প্রচন্ড ধোঁয়ার কারণে আগুন সহজে নিভানো যাচ্ছে না।

কুমিল্লা ফায়ার সার্ভিসের এক কর্মকতা জানান, আমরা আগুন নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। আশা অতি দ্রুত নিয়ন্ত্রনে চলে আসবে।

তিন ঘন্টার চেষ্টায় চকবাজারের আগুন নিয়ন্ত্রণে

( জাগো কুমিল্লা.কম)
স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিসের তিন ঘন্টার চেষ্টায় চকবাজারের আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে। শনিবার দুপুর ১ টায় লাগা আগুন ফায়ার সার্ভিসের ৪ টি ইউনিটের নিয়ন্ত্রণে কাজ করে। প্রথম দুইটি ইউনিট নিয়ন্ত্রণে কাজ করে । তবে আগুনের তীব্রতা বেশি হওয়ার কারনে আরো ২ টি ইউনিট যোদ দেয়। কি কারণে আগুন সূত্রপাত তা এখন বলতে পারছে না ফয়ার সার্ভিসের কর্মকর্তারা।

চকবাজার বাঁশ বাজারের দক্ষিণ পাশে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুনের তীব্রতা বেশি হওয়ার কারণে নিয়ন্ত্রণে আনতে বেগ পেতে হয় ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের। স্থানীয়রা আগুন নেভানোর সহযোগিতা করে। স্থানীয়রার জানান, বাঁশ বাজারের পাশে একটি ভবনে আগুনের সূত্রপাত হয় । এতে প্রায় ২০ টি দোকান ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে ।

কুমিল্লা ফায়ার সার্ভিসের কর্মকতা আলমগীর হোসেন জাগো কুমিল্লা ডট কম জানান, কি কারণে আগুণের সূত্রেপাত হয়েছে তা এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি।ক্ষয়-ক্ষতির পরিমান এখনও নিরুপন করা হয়নি।

অগ্নিকাণ্ডে ২০ দোকান পুড়ে ছাই; ২ কোটি টাকার ক্ষতি

( জাগো কুমিল্লা.কম)

কুমিল্লার নগরীর চকবাজার তেরিপট্টিতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে ২০টি দোকানে পুড়ে ছাই হয়েছে। শনিবার দুপুরে বাঁশ বাজারের দক্ষিণ পাশে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। এতে প্রায় নগদ টাকাসহ প্রায় ২ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে দাবি করেছে ক্ষতিগ্রস্থ ব্যবসায়ীরা।

ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন নগরীর ৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোশারফ হোসেন। এর মধ্যে গোডাউন রয়েছে কয়েকটি।

বিকাল তিনটায় স্থানীয় ও ফায়ার সার্ভিসের তিন ঘন্টার চেষ্টায় চকবাজারের আগুন নিয়ন্ত্রণে এসেছে। শনিবার দুপুর ১ টায় লাগা আগুন ফায়ার সার্ভিসের ৪ টি ইউনিটের নিয়ন্ত্রণে কাজ করে।

প্রথম দুইটি ইউনিট নিয়ন্ত্রণে কাজ করে । তবে আগুনের তীব্রতা বেশি হওয়ার কারনে আরো ২ টি ইউনিট যোদ দেয়। কি কারণে আগুন সূত্রপাত তা এখন বলতে পারছে না ফয়ার সার্ভিসের কর্মকর্তারা।

ক্ষতিগ্রস্থ্ মুদি দোকানের মালিক শংকর চন্দ্র সাহা জানান, অগ্নিকান্ডে আমার দোকানের সব পুড়ে গেছে। আমার প্রায় ৪ লক্ষ টাকার মালামাল নষ্ট হয়েছে।প্রায় ৮০ হাজার টাকা নগদ ছিল ক্যাশে। অগ্নিকাণ্ডের কান্ডের সময় আমি দোকানে ছিলাম না।

চকবাজার বাঁশ বাজারের দক্ষিণ পাশে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুনের তীব্রতা বেশি হওয়ার কারণে নিয়ন্ত্রণে আনতে বেগ পেতে হয় ফায়ার সার্ভিস কর্মীদের।

কুমিল্লা ফায়ার সার্ভিসের কর্মকতা আলমগীর হোসেন জাগো কুমিল্লা ডট কম জানান, বৈদ্যুতিক শর্ট সার্কিটের কারণে আগুণের সূত্রেপাত হয়েছে বলে ধারাণা করা হচ্ছে। এখানে সর্বমোট ১৩ টি দোকান ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে । তবে ক্ষয়-ক্ষতির পরিমান  বাজার কমিটির নিরুপন করবে ।

 

আরও পড়ুন

%d bloggers like this: