1. jagocomilla24@gmail.com : jago comilla :
  2. weekybibarton@gmail.com : Amit Mazumder : Amit Mazumder
  3. sufian3500@gmaill.com : sufian Rasel : sufian Rasel
  4. sujhon2011@gmail.com : sujhon :
সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ০৭:২৯ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজঃ

শপথ নিলেন কুমিল্লার দুই মন্ত্রী; উৎফুল্ল কুমিল্লাবাসী

  • প্রকাশ কালঃ সোমবার, ৭ জানুয়ারি, ২০১৯
  • ১৪০০

অনলাইন ডেস্ক:
একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নিরঙ্কুশ জয়ের রেকর্ড গড়ার পর চমক লাগানো মন্ত্রিসভার মন্ত্রীরা শপথ নিলেন। এই মন্ত্রিসভায় প্রধানমন্ত্রী হিসেবে রয়েছেন শেখ হাসিনা। এ ছাড়া রয়েছেন মন্ত্রী ২৪ জন, প্রতিমন্ত্রী ১৯ জন ও উপমন্ত্রী তিনজন।

সরকারের নতুন মন্ত্রী সভায় কুমিল্লার আ হ ম মুস্তফা কামাল অর্থমন্ত্রী ও স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী হিসেবে তাজুল ইসলাম শপথ গ্রহন করেছেন। শপথ গ্রহন করায় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ও বিশিষ্ট্য ব্যক্তিবর্গরা তাদের অভিনন্দন জানান।

গত পাঁচ বছরও দুটি মন্ত্রণালয়ের দখল ছিল কুমিল্লার। এবারো তাই। তবে আনন্দটা একটু বেশি মন্ত্রণালয় দুটির নাম দেখে।
কুমিল্লা-১১ আসনের মুজিবুল হক রেল মন্ত্রী থেকে বাদ পড়ে যাওয়ার পরও বড় দুটি মন্ত্রণালয় থাকায় কুমিল্লায় আরো বেশি উন্নয়নের আশা করছেন জেলার বাসিন্দারা।এই দুই জনের মধ্যে মুস্তফা কামাল গত পাঁচ বছর ধরে পরিকল্পনা মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। স্থানীয় উন্নয়নে তার ভূমিকা রয়েছে। তবে তাজুল ইসলাম প্রথমবারের মতো ঢুকছেন মন্ত্রিসভায়।

এর আগের অভিজ্ঞতায় দেখা গেছে, এলজিআরডি মন্ত্রীরা নিজ নির্বাচনী এলাকায় উন্নয়নের ক্ষেত্রে ব্যাপক প্রভাব রাখেন। তাজুলকে ঘিরে তাই আশার বেলুনটাও বড়।এরই মধ্যে দুই মন্ত্রীর নির্বাচনী এলাকায় দল বেঁধে তাদের ভক্তরা উল্লাস করেছেন। মিছিলের পাশাপাশি হয়েছে মিষ্টি বিতরণ।

কুমিল্লা জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাহাঙ্গীর আলম রতন বলেন, ‘কুমিল্লাবাসী অত্যান্ত আনন্দিত এবং গর্বিত। দুই মন্ত্রীর প্রতিনিধিত্বের মাধ্যমে কুমিল্লার উন্নয়ন ও সমৃদ্ধি আরও বৃদ্ধি পাবে, এই প্রত্যাশা সকলের। কুমিল্লাবাসীর বহুদিনের আশা ও প্রত্যাশা পূরণ হবে বলেও আমরা মনে করি।’

গত ৩০ ডিসেম্বরের ভোটে কুমিল্লার ১৭টি উপজেলার ১১টি আসনের সব কটিতে আওয়ামী লীগ জিতেছে। ক্ষমতাসীন দলের নেতা-কর্মীরা আশা করছেন দুই মন্ত্রীর ভবিষ্যৎ কর্মকাণ্ডে ওই এলাকায় তাদের অবস্থান আরো দৃঢ় হবে।

সোমবার বিকেল ৩টা ৪৬ মিনিটে বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ মন্ত্রীদের শপথবাক্য পাঠ করান। তার আগে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নেন আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শেখ হাসিনা শপথ নিলেন চতুর্থবারের মতো। এর মধ্যে দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে টানা তৃতীয়বারের মতো সরকার গঠিত হলো বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে নেতৃত্ব দেয়া আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে।

এর আগে গতকাল রোববার সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রিপরিষদ সচিব মো. শফিউল আলম মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী ও উপমন্ত্রীদের তালিকা প্রকাশ করেন। এই তালিকা অনুযায়ী আজ বিকেলে প্রত্যেক মন্ত্রীর বাড়িতে পরিবহন পুল থেকে গাড়ি যায়। ওই গাড়িতে চড়ে মন্ত্রীরা বঙ্গভবনে যান শপথ নিতে।

নতুন মন্ত্রিসভায় মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়, প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ, বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় এবং মহিলা ও শিশুবিষয়ক মন্ত্রণালয় প্রধানমন্ত্রী নিজের কাছে রেখেছেন।

মন্ত্রী হিসেবে যারা শপথ নিলেন তারা হলেন- আ ক ম মোজাম্মেল হক (মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী), ওবায়দুল কাদের (সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী), ড. আবদুর রাজ্জাক (কৃষিমন্ত্রী), আসাদুজ্জামান খান কামাল (স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী), ড. হাছান মাহমুদ (তথ্যমন্ত্রী), আনিসুল হক (আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রী), আ হ ম মুস্তফা কামাল (অর্থমন্ত্রী), তাজুল ইসলাম (এলজিআরডি), ডা. দীপু মনি (শিক্ষামন্ত্রী), ড. আবদুল মোমেন (পররাষ্ট্রমন্ত্রী) আবদুল মান্নান (পরিকল্পনামন্ত্রী), নুরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন (শিল্পমন্ত্রী), গোলাম দস্তগীর গাজী (বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী), জাহেদ মালেক স্বপন (স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণ মন্ত্রী), সাধনচন্দ্র মজুমদার (খাদ্যমন্ত্রী), টিপু মুনশি (বাণিজ্যমন্ত্রী), নুরুজ্জামান আহমেদ (সমাজকল্যাণমন্ত্রী), শ ম রেজাউল করিম (গৃহায়ণ ও গণপূর্তমন্ত্রী), শাহাব উদ্দিন (পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী), বীর বাহাদুর উশৈ সিং (পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রী), সাইফুজ্জামান চৌধুরী (ভূমিমন্ত্রী), নুরুল ইসলাম সুজন (রেলপথমন্ত্রী), স্থপতি ইয়াফেস ওসমান (বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রী), মোস্তাফা জব্বার (ডাক ও টেলিযোগাযোগ তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী)।

আজকের শপথ অনুষ্ঠানের জন্য রোববার দুপুরেই ফোন পেয়ে যান মন্ত্রীরা। গণভবন থেকে বেলা দেড়টার দিকে তালিকা নিয়ে সচিবালয়ে ফেরেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম।

উল্লেখ্য, ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা লাভ করে আওয়ামী লীগ। নির্বাচনে ২৯৮ আসনের মধ্যে ২৫৭টিতে জয় পায় ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ। জোটগতভাবে তারা পায় ২৮৮ আসন। অন্যদিকে তাদের প্রধান প্রতিপক্ষ বিএনপি ও তাদের জোট ঐক্যফ্রন্ট পায় মাত্র সাতটি আসন। তবে এ সাতজনের কেউ এখনও শপথ নেননি।

শেয়ার করুনঃ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুনঃ

© All rights reserved © 2024 Jago Comilla
Theme Customized By BreakingNews